মুকুলের কপালে উঠল প্রথম জয়টিকা! ২০ বছর আগের ‘শাপমোচন’ একুশের যুদ্ধে জয়ে

[ad_1]

প্রথম নিজের জয়ে আনন্দ উপভোগ মুকুলের

২০০১ সালের ভোটে হারের পর আর ভোটে দাঁড়ানোর নাম করেননি মুকুল রায়। এবার তৃণমূল ছেড়ে বিজেপিতে গিয়ে আবারও প্রার্থী হয়েছেন মুকুল রায়। এবার তিনি জিতলেন। চাণক্য জয় পেলেন সরাসরি। এতদিন অপরকে জিতিয়ে, দলকে জিতিয়ে আনন্দ পেতেন, এই প্রথম তিনি নিজে জেতার আনন্দ উপভোগ করছেন।

শেষ হাসি মমতার দলের প্রাক্তন সেকেন্ড ইন কম্যান্ডের

শেষ হাসি মমতার দলের প্রাক্তন সেকেন্ড ইন কম্যান্ডের

এবার বেশিরভাগ আসনে তৃণমূল বনাম প্রাক্তন তৃণমূলীর লড়াই হয়েছে। তৃণমূল ছেড়ে বিজেপির প্রার্থী হওয়া সর্বভারতীয় সহ সভাপতি মুকুল রায়ের বিরুদ্ধে তৃণমূলের যিনি প্রার্থী হয়েছেন তিনি অভিনয় জগৎ থেকে আসা। অভিনেত্রী কৌশানী মুখোপাধ্যায়কে কৃষ্ণনগর উত্তরের প্রার্থী হয়ছিলেন মুকুল রায়ের বিরুদ্ধে। সেই যুদ্ধে শেষ হাসি হাসলেন মমতার দলের প্রাক্তন সেকেন্ড ইন কম্যান্ডই।

বিজেপির টিকিটে জীবনের প্রথম জয় মুকুলের

বিজেপির টিকিটে জীবনের প্রথম জয় মুকুলের

মুকুল রায় বনাম কৌশানী মুখোপাধ্যায়ের লড়াইয়ে বিজেপি প্রার্থীই যে এগিয়ে থাকবেন, তার আভাসর পাওয়া গিয়েছিল বুথ ফেরত সমীক্ষায়। সেইমতো ভোটের ফলেও দেখা গেল উত্তরোত্তর লিড বাড়িয়ে এই কেন্দ্রে মুকুল রায়কে জয়ের কিনারায় পৌঁছে যেতে। শেষে জয়ী হন তিনিই। জীবনের প্রথম জয় পেলেন বিজেপির টিকিটে।

বিরোধী দলনেতা হওয়ার সম্ভাবনা মুকুল রায়ের

বিরোধী দলনেতা হওয়ার সম্ভাবনা মুকুল রায়ের

২০ বছর পর কাঙ্খিত জয় পেয়ে মুকুল রায় এবার বিরোধী দলনেতার দাবিদার হয়ে উঠলেন বাংলার বিধানসভায়। তৃণমূলের হ্যাটট্রিক পাকা হয়ে গিয়েছে। ২০০-র বেশি আসনে জিতে তৃণমূল ক্ষমতায় আসছে। আর প্রধান বিরোধী দল হয়ে উঠেছে বিজেপি। ফলে বিরোধী দলনেতা হওয়ার সম্ভাবনা মুকুল রায়ের।

[ad_2]

Source link

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *